রাজ্যের খবর

সাবধান! ‘জাওয়াদ ‘এর জেরে বাংলায় কোন কোন জেলায় কত পরিমান বৃষ্টি হবে তা জানালো আবহাওয়া দপ্তর!

তনুশ্রী ভান্ডারী  ডেক্স ঃ-আন্দামান সাগরে তৈরি হওয়া নিম্নচাপ বর্তমানে অবস্থান করছে দক্ষিণ-পূর্ব বঙ্গোপসাগরে। এই নিম্নচাপ খুব তাড়াতাড়ি শক্তি সঞ্চয় করে ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হবে। এই পরিণত হতে চলা ঘূর্ণিঝড়ের নামকরণ সৌদি আরবের তরফ থেকে করা হয়েছে, নাম হতে চলেছে ‘জাওয়াদ’।

এই ঘূর্ণিঝড় ইতিমধ্যেই চিন্তা বাড়াতে শুরু করেছে।

অন্ধ্র ও উড়িষ্যা উপকূলে এই ঘূর্ণিঝড় আছড়ে পড়ার পাশাপাশি প্রবল দুর্যোগের আশঙ্কা রয়েছে বাংলাতেও। এরই পরিপ্রেক্ষিতে শুরু হয়েছে প্রশাসনিক তত্‍পরতা। পাশাপাশি হাওয়া অফিসের তরফ থেকে বৃহস্পতিবার জানিয়ে দেওয়া হল, বাংলার কোন কোন জেলায় কোন দিন কি পরিমাণ বৃষ্টি হতে পারে।

হাওয়া অফিসের তরফ থেকে বৃহস্পতিবার যে পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছে তাতে বলা হয়েছে, এই ঘূর্ণিঝড় ৪ ডিসেম্বর অর্থাত্‍ শনিবার সকালে অন্ধ্র ও উড়িষ্যা উপকূলে পৌঁছাবে। এর প্রভাবে শনিবার থেকে সোমবার পর্যন্ত গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের ঝড় বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

৪ ডিসেম্বর : এই দিন পূর্ব মেদিনীপুরের জন্য কমলা সর্তকতা জারি করা হয়েছে। এই দিন পূর্ব মেদিনীপুরের বেশ কয়েকটি জায়গায় ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টি হতে পারে। বৃষ্টির পরিমাণ থাকবে ৭ থেকে ২০ সেন্টিমিটার।

এই দিন পশ্চিম মেদিনীপুর, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, ঝাড়গ্রাম এবং হাওড়া জেলার জন্য হলুদ সর্তকতা জারি করা হয়েছে। ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস রয়েছে। বৃষ্টি হতে পারে ৭ থেকে ১১ সেন্টিমিটার।

এর পাশাপাশি এই সকল জেলাগুলির মধ্যে পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, ঝাড়গ্রাম এবং হাওড়া জেলায় ঝড়ের গতিবেগ থাকতে পারে ঘন্টায় ৩০ থেকে ৪০ কিমি।

৫ ডিসেম্বর : ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনার দিকে তাকিয়ে এই দিন কমলা সর্তকতা জারি করা হয়েছে পূর্ব ও পশ্চিম মেদিনীপুর, উত্তর ও দক্ষিণ ২৪ পরগনা, ঝাড়গ্রাম, কলকাতা এবং হাওড়া জেলার জন্য। বৃষ্টি হতে পারে ৭ থেকে ২০ সেন্টিমিটার।

ভারী বৃষ্টির দিকে তাকিয়ে হলুদ সর্তকতা জারি করা হয়েছে পুরুলিয়া, বাঁকুড়া, হুগলি, নদিয়া, বীরভূম, মুর্শিদাবাদ, পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমান এবং মালদার জন্য। বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে ৭ থেকে ২০ সেন্টিমিটার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *