স্বাস্থ্য

নিয়মিত গাজর খাওয়ার মাধ্যমে দৃষ্টিশক্তি বাড়ান ও হৃদ রোগ প্রতিরোধ করুন।

বিউরো ঃ- উদ্ভিদ স্বাস্থ্য গঠন কিংবা স্বাস্থ্যরক্ষায় সরাসরি ভূমিকা রাখে না।

তবে উদ্ভিদের মধ্যে যেসব খাদ্যগুণ রয়েছে তা দেহের রোগ প্রতিরোধক এবং স্বাস্থ্যরক্ষায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। এমনই একটি উদ্ভিদ হলো গাজর। এটি রোগ উপশমকারী কিংবা কোনো ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয় না। তবে গাজর অত্যন্ত পুষ্টিকর খাদ্য যা শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় এবং স্বাস্থ্যরক্ষায় ভূমিকা রাখে।

গাজর এমন একটি সবজি আছে যা পুষ্টিবিদরা সবসময় খাওয়ার পরামর্শ দেন। গাজর বিটা ক্যারোটিনের একটি ভাল উত্‍স যা আদপে একটি প্রাকৃতিক রঙ্গক। এই পিগমেন্ট বা রঙ্গক শরীরে ভিটামিন এ তৈরিতে সাহায্য করে। গাজরে প্রচুর পরিমাণে ফাইবার থাকে। প্রতিদিন গাজর খেলে কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যা মিটে যায়। আর প্রতিদিন ডায়েটে সবজি হিসেবে খাওয়ার সর্বোত্তম উপায়ও এই গাজর। গাজর স্বাস্থ্যকর কোলেস্টেরল বজায় রাখতে এবং হৃদরোগ প্রতিরোধে সাহায্য করে। পটাসিয়াম সমৃদ্ধ হওয়ায় কোলেস্টেরল কমাতে সাহায্য করে।

দৃষ্টিশক্তির জন্য ভালো-
আপনি যদি আপনার দৃষ্টিশক্তি উন্নত করতে চান তাহলে গাজরের চেয়ে ভাল আর কিছু নেই। গাজর ভিটামিন এ-এর খুব ভাল একটা প্রাকৃতিক উত্‍স, যা স্বাস্থ্যকর দৃষ্টিশক্তি বাড়াতে সাহায্য করে। গাজরে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে লুটেইন এবং লাইকোপেন যা স্বাভাবিক দৃষ্টিশক্তি আর রাতের দৃষ্টিশক্তি ঠিক রাখতে সাহায্য করে।

ওজন কমাতে সাহায্য করে-

আপনি যদি ওজন কমানোর ডায়েটে থাকেন, আপনার ডায়েটে অবশ্যই ফাইবার বেশি এবং ক্যালোরি কম আছে এমন খাবার অন্তর্ভুক্ত করতে হবে। আর সেক্ষেত্রে গাজর ফাইবারের অন্যতম সেরা উত্‍স। ফাইবার হজম হতে সবচেয়ে বেশি সময় নেয়, যার ফলে পেট দীর্ঘ সময় ভরা থাকে। এর ফলে আপনি অন্যান্য ক্ষতিকর খাবার যেগুলো পেট ভারি করে দেয়, সেগুলো থেকে দূরে থাকেন।

হজমে সাহায্য করে-

গাজরে উল্লেখযোগ্য পরিমাণে ফাইবার থাকে। ফাইবার ভাল পরিপাক স্বাস্থ্য বজায় রাখতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। ফাইবার আপনার মলকে ভারি করে যার ফলে এটি পাচনতন্ত্রের মধ্য দিয়ে সহজে যেতে সাহায্য করে। এর ফলে কোষ্ঠকাঠিন্যের মতো অবস্থার মোকাবিলা করা খুব সহজ হয়ে যায়।

কোলেস্টেরলের বিরুদ্ধে লড়াই করে এবং হার্টের স্বাস্থ্য বাড়ায়-

গাজরের উচ্চ ফাইবারের পরিমাণ ধমনী এবং রক্তনালীর দেয়াল থেকে অতিরিক্ত এলডিএল কোলেস্টেরল অপসারণ করতে সাহায্য করে। যার ফলে হৃদযন্ত্রের স্বাস্থ্য সুরক্ষিত থাকে। গাজরে রয়েছে এক ধরনের ক্যালসিয়াম যা সহজেই শরীরে মিশে যায়। এই ক্যালসিয়াম শরীরের অস্বাস্থ্যকর কোলেস্টেরলের মাত্রা কমাতে সাহায্য করে।

রক্তচাপ কমায়-

গাজরে পটাশিয়াম থাকে। পটাশিয়াম আপনার রক্তনালী এবং ধমনীর টান শিথিল করতে সাহায্য করে। এর ফলে রক্ত ​​প্রবাহ মসৃণ হয়, যা আপনার উচ্চ রক্তচাপ কমাতে সাহায্য করে .

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *