রাজ্যের খবর

‘জাওয়াদ ‘এর জেরে বিপর্যস্ত গোটা বাংলা! কবে দেখা মিলবে রোদের?

তনুশ্রী ভান্ডারী ডেক্স ঃ- ধীরে ধীরে শক্তি হারিয়ে নিম্নচাপে পরিণত হয়েছে ঘূর্ণিঝড় ‘জাওয়াদ’ (Cyclone Jawad)। যার জেরে রবিবার সন্ধে থেকেই বৃষ্টিতে ভেসেছে বাংলা। সোমবার সকালেও চলছে বৃষ্টি। টানা বর্ষণে জেলা থেকে শুরু করে খাস কলকাতা, জলমগ্ন হয়ে পড়েছে বিভিন্ন এলাকা।রাস্তায় বেরিয়ে নাজেহাল হতে হচ্ছে আমজনতাকে। কতদিনে কাটবে নিম্নচাপের ভ্রুকুটি? কবে ফের দেখা মিলবে রোদের?

আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, আগামিকাল থেকেই মেঘ কাটবে। উঠবে রোদও। কিন্তু তাই বলে জাঁকিয়ে শীত পড়বে না এখনই। আগামিকাল থেকে বড়জোর এক থেকে দু’ডিগ্রি তাপমাত্রা রাতের দিকে কমতে পারে। তবে শীতের আমেজ থাকবে। কারণ, বৃষ্টির জেরে দিনের তাপমাত্রা এক ধাক্কায় কমেছে অনেকটাই। চলতি সপ্তাহের শেষে তাপমাত্রা আরও কিছুটা কমতে পারে। পুরোপুরি শীত পড়বে ১৫ ডিসেম্বরের পর।হাওয়া অফিসের কর্তারা জানাচ্ছেন, ঘূর্ণিঝড় এবং নিম্নচাপের কারণে প্রচুর পরিমাণে জলীয় বাষ্প ঢুকেছে বঙ্গে। যে কারণে উত্তুরে হাওয়া বাধাপ্রাপ্ত হচ্ছে। এই পরিস্থিতি কাটতে আরও কিছুদিন সময় লাগবে। তার পরই শীত পড়বে। কলকাতায় শীত পড়তে আরও কিছুদিন সময় লাগলেও জেলায় ঠান্ডা পড়তে শুরু করবে সপ্তাহান্তেই। বিশেষত পশ্চিমের জেলাগুলোতে ১৫ ডিগ্রির নিচে নামবে তাপমাত্রা। ১১ ডিসেম্বর থেকে তাপমাত্রা কমবে কলকাতাতেও।

আবহাওয়াবিদদের আশ্বাস, ঘূর্ণিঝড় জাওয়াদ কাটার কয়েকদিন পর রাজ্যে শীত পড়ার অনুকূল পরিস্থিতি তৈরি হবে। বঙ্গে উত্তুরে হাওয়া প্রবেশ করবে অবাধে। তার জেরেই কনকনে ঠান্ডা পড়তে পারে। তবে, তার জন্য বেশ কয়েকদিন সময় লাগবে। চলতি সপ্তাহের শেষ থেকে কলকাতা ও দক্ষিণের জেলাগুলির রাতের তাপমাত্রা কমতে পারে। হাওয়া অফিসের কর্তাদের কথায়, উত্তর-পশ্চিম ভারতে আগামী কয়েকদিনের মধ্যে রাতের পারদ কয়েক ডিগ্রি কমতে দেখা যেতে পারে। তার জেরেই পড়বে পূর্ব-ভারতে। ঠান্ডা অনুভূত হবে বঙ্গে। আসলে উত্তর ভারতের পাহাড়ি অঞ্চলে তুষারপাত হলে, উত্তর-পশ্চিম ভারতে জাঁকিয়ে ঠান্ডা পড়ে। ফলে শীত অনুভূত হয়। ক্রমেই এই পরিস্থিতি সৃষ্টি হচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *